নিবন্ধিত হোন |
ইউজার সাইনইন
ই-মেইলঃ
পাসওয়ার্ডঃ
পাসওয়ার্ড ভুলে গেছেন?
ই-মেইলঃ 
বন্ধ করুন (X)
ঢাকা, শুক্রবার ১৩ অক্টোবর ২০১৭, ২৮ আশ্বিন ১৪২৪, ২২ মহররম ১৪৩৯
জামায়াতের নিরুত্তাপ হরতাল পালিত গ্রেফতার ৭৪
রাজপথে দেখা যায়নি নেতাকর্মীদের জনজীবন ছিল স্বাভাবিক
স্টাফ রিপোর্টার
জামায়াতে ইসলামীর ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল সারাদেশে নিরুত্তাপভাবে পালিত হয়েছে। পিকেটিং ও সংঘর্ষের মতো কোনো ঘটনা ঘটেনি, মাঠে দেখা যায়নি জামায়াতে ইসলামীর নেতাকর্মীদের। নিষ্প্রাণ এই হরতালে সাড়া দেয়নি দেশবাসীও। গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল থেকে অন্য দিনের মতোই যানবাহন চলাচল করতে দেখা গেছে। ফলে হরতালেও স্বাভাবিক ছিল প্রাত্যহিক জীবনযাত্রা। বিভিন্ন সড়কের মোড়ে মোড়ে যানজটও দেখা গেছে। ঢাকা থেকে ছেড়ে গেছে দূরপাল্লার পরিবহণও। এছাড়াও সরকারি স্কুল, কলেজের ক্লাস ও পরীক্ষাও চলছে অন্যান্য দিনের মতোই। রাজধানীর বেশ কয়েকটি এলাকা ঘুরে দেখা যায়, হরতালকে কেন্দ্র করে রাজধানীর বিভিন্ন পয়েন্টে সকাল থেকে মোতায়েন করা হয়েছে বাড়তি পুলিশ। গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টগুলোতে পুলিশের পাশাপাশি র‌্যাব সদস্যদের উপস্থিতিও লক্ষ্য করা গেছে। রাজধানীর মতিঝিল, মালিবাগ, রামপুরা, বাড্ডা, মহাখালী, বনানী ও উত্তরা এলাকা ঘুরে এমন চিত্রই দেখা গেছে। সরকারি-বেসরকারি প্রতিটি অফিসও চলেছে স্বাভাবিক। দেশের কোথাও পিকেটিংয়ের খবর পাওয়া যায়নি। দেখা যায়নি জামায়াত-শিবিরের কোনো নেতাকর্মীকে। এদিকে নাশকতার আশঙ্কায় সারাদেশে গ্রেফতার হয়েছে জামায়াত-শিবিরের ৭৪ নেতাকর্মী।

সরেজমিনে দেখা যায়, জামায়াতে ইসলামী সকাল-সন্ধ্যা হরতাল আহ্বান করলেও মাঠে দেখা মেলেনি নেতাকর্মীদের। তবে রাজপথে ছিল ছাত্রলীগসহ আওয়ামী লীগের বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

সকালে সরেজমিন পরিদর্শনকালে দেখা যায়, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ রাজধানীর বিভিন্ন গুরত্বপূর্ণ রাস্তার মোড়ে আওয়ামী লীগের বিভিন্ন সংগঠনের বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী অবস্থান নিয়েছে। হরতাল তথা জামায়াতবিরোধী মুহুর্মুহু সস্নোগানে রাজপথ কাঁপাচ্ছেন তারা। এছাড়া হরতালে যেকোনো ধরনের নাশকতা এড়াতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের বিভিন্ন গুরত্বপূর্ণ রাস্তায় সশস্ত্র অবস্থায় অবস্থান গ্রহণ করতে দেখা যায়।

অন্যদিকে সকালে রাজধানীর রাস্তাঘাটে যানবাহন তুলনামূলকভাবে কম দেখা গেলেও বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে রাজপথে বাস, মিনিবাস, প্রাইভেটকার, মোটরসাইকেল, রিকশাসহ বিভিন্ন যানবাহনের সংখ্যা বাড়তে থাকে। কোথাও কোথাও যানজটেরও সৃষ্টি হয়। তবে রাজধানীর বিভিন্ন স্কুলে শিক্ষার্থীদের উপস্থিতি তুলনামূলকভাবে কম ছিল। অনেক অভিভাবক ভয়ে তাদের সন্তানদের স্কুলে পাঠাননি।

ঢাকা মহানগর পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, হরতালের সমর্থনে দলটির নেতাকর্মীরা রাজধানীর যেসব সম্ভাব্য স্থানে বিক্ষোভ করতে পারে সেসব স্থানে গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই নেয়া হয়েছে বাড়তি নিরাপত্তা। ডিএমপির উত্তরা পূর্ব থানার পরিদর্শক (তদন্ত) শফিকুল গনি সাবু জানান, এ এলাকায় হরতালের কোনো প্রভাব ছিল না। শান্তিপূর্ণভাবে প্রতিদিনের মতোই সড়কে যান চলাচল করেছে।

ওয়ারি থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জানান, পুলিশ সতর্ক অবস্থানে ছিল। মাঠে জামায়াতের নেতাকর্মীদের দেখা যায়নি। সবকিছু স্বাভাবিক ছিল।

জানা যায়, ঝিনাইদহে নাশকতার আশঙ্কায় জামায়াতের ৮ নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গত বুধবার রাত থেকে গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে সদর ও মহেশপুর উপজেলা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। ঝিনাইদহের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আজবাহার আলী শেখ জানান, দেশব্যাপী ডাকা জামায়াতের হরতাল সমর্থনে ঝিনাইদহের বিভিন্ন স্থানে জামায়াতের নেতাকর্মীরা নাশকতা সৃষ্টি করতে পারে এমন আশঙ্কায় সদর উপজেলা থেকে ৫ জন ও মহেশপুর উপজেলা থেকে ৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃতরা নাশকতার বিভিন্ন মামলার আসামি। এছাড়াও পুলিশ অভিযান চালিয়ে সদর উপজেলা থেকে ৩৫ জন, শৈলকুপা উপজেলা থেকে ১৬ জন, কোটচাঁদপুর উপজেলা থেকে ৫ জন, কালীগঞ্জ উপজেলা থেকে ১ জন, হরিণাকুন্ডু উপজেলা থেকে ৫ জন ও মহেশপুর উপজেলা থেকে ৬ জন বিভিন্ন মামলায় ওয়ারেন্টভুক্ত পলাতক আসামিকে গ্রেফতার করা হয় বলে ঐ পুলিশ কর্মকর্তা আরও জানান।

এছাড়া নাশকতা, অগি্নসংযোগ, সরকারি কাজে বাধা দেয়ার অভিযোগে তিন জেলায় জামায়াতে ইসলামীর ৬ নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গত বুধবার গভীর রাতে চুয়াডাঙ্গা, ঝালকাঠি ও সিরাজগঞ্জে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃতরা হলেন ঝালকাঠিতে পৌর জামায়াতের আমির মাওলানা আবদুল হাই, চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদার হাউলী ইউনিয়ন জামায়াতের আমির রফিকুল ইসলাম জিয়া, দামুড়হুদা ইউনিয়ন জামায়াতের সাধারণ সম্পাদক আবিদ উল্লাহ টিটন, দামুড়হুদার জামায়াতকর্মী হাবিবুর রহমান, দামুড়হুদার কার্পাসডাঙ্গা গ্রামের জামায়াতকর্মী শামসুল ইসলাম ভুলু এবং সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় নূর ইসলাম (৩৫)। সম্প্রতি জামায়াতের আমিরসহ শীর্ষ নেতাকর্মীদের গ্রেফতারের প্রতিবাদে দলটি ৩ দিনের কর্মসূচি ঘোষণা করেছে। কর্মসূচির অংশ হিসেবে গতকাল বৃহস্পতিবার সারাদেশেই হরতাল পালিত হয়। হরতালের আগের দিন রাতে জামায়াতের মাঠ পর্যায়ের এই নেতাকর্মীদের আটক ও গ্রেফতার করে পুলিশ।

প্রসঙ্গত, গত সোমবার (০৯ অক্টোবর) রাতে রাজধানীর উত্তরার একটি বাসা থেকে দলের আমির মকবুল আহমাদ, নায়েবে আমির ও সাবেক এমপি অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ার, সেক্রেটারি জেনারেল ডা. শফিকুর রহমানসহ ৯ জনকে গ্রেফতার করা হয়। গত মঙ্গলবার (১০ অক্টোবর) তাদের ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। এর প্রতিবাদে হরতালের ডাক দেয় সংগঠনটি।

এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আনার মতামত দিন।
মতামত দিতে চাইলে অনুগ্রহ করে করুন।
আপনার কোন একাউন্ট না থাকলে রেজিষ্ট্রেশন করুন।
এই পাতার আরো খবর -
সর্বাধিক পঠিত
ফটো গ্যালারি
আজকের পত্রিকা
আজকের নামাজের সময়সূচীনভেম্বর - ১৩
ফজর৫:১১
যোহর১১:৫৩
আসর৩:৩৮
মাগরিব৫:১৭
এশা৬:৩৪
সূর্যোদয় - ৬:৩২সূর্যাস্ত - ০৫:১২
পুরোন সংখ্যা
বছর : মাস :
আজকের পাঠকসংখ্যা
২৫৮৫.০
সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতিঃ সৈয়দ এম. আলতাফ হোসাইন। সম্পাদক : আহ্সান উল্লাহ্। উপদেষ্টা সম্পাদক : মোঃ শাহাবুদ্দিন শিকদার। প্রকাশক ছৈয়দ আন্ওয়ার কর্তৃক রোমাক্স লিমিটেড, তেজগাঁও শিল্প এলাকা থেকে মুদ্রিত। সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : খলিল ম্যানশন (৩য়, ৫ম ও ৬ষ্ঠ তলা), ১৪৯/এ, ডিআইটি এক্সটেনশন এভিনিউ, ঢাকা-১০০০ থেকে প্রকাশিত। ফোন : ৯৩৫৭৭৩০ (বার্তা), ৮৩১৫৬৪৯ (বাণিজ্যিক), ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪.
ই-মেইলঃ djanata@dhaka.net
ফোনঃ ০২৮৩১৫১১৫, ০২৮৩১৫৬৪৯ ফ্যাক্সঃ ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪
Copyright The Dainik Janata © 2010 Developed By : orangebd.com.