নিবন্ধিত হোন |
ইউজার সাইনইন
ই-মেইলঃ
পাসওয়ার্ডঃ
পাসওয়ার্ড ভুলে গেছেন?
ই-মেইলঃ 
বন্ধ করুন (X)
ঢাকা, সোমবার ১০ আগস্ট ২০১৫, ২৬ শ্রাবণ ১৪২২, ২৪ শাওয়াল ১৪৩৬
রূপগঞ্জে আবাসন প্রকল্পের বিরুদ্ধে শত বিঘা জমি জবর দখলের অভিযোগ
রূপগঞ্জ প্রতিনিধি
নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে একটি আবাসন প্রকল্প ২৫ শতাংশ জমি কিনে প্রায় শত বিঘা জমিতে বালু ভরাট করে জবরদখল চালিয়ে আসছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ইতোমধ্যে বালু ভরাটের জন্য ড্রেজার ও পাইপ স্থাপন করা হয়েছে। নিরীহ জমির মালিকরা প্রতিবাদ করলে তাদের দেয়া হয় নানা রকম হুমকি-ধামকি। এতে করে নিরীহ জমির মালিকরা এখন জবরদখল আতঙ্কে দিন কাটাচ্ছেন। কখন জোরপূর্বক বালু ফেলা শুরু করবে, আর প্রতিবাদ করলে কি হবে এ ধরনের ভয় জমির মালিকদের মাঝে দেখা দিয়েছে। নিরীহ এসব জমির মালিক এখন অসহায় হয়ে পড়েছেন। তবে, জমির মালিকদের একটাই কথা রক্ত দিবো, তবুও জমি দেবো না। উপজেলার সদর ইউনিয়নের গোয়ালপাড়া এলাকার আইকন সিটি নামে একটি আবাস প্রকল্পের বিরুদ্ধে জবরদখলের অভিযোগ উঠেছে। জমির মালিক, এলাকাবাসী ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বেশ কয়েক বছর আগে আইকন সিটি নামে একটি আবাসন প্রকল্পের মালিকপক্ষ গোয়ালপাড়া এলাকার পর্শী মৌজার জমির মালিকদের কাছ থেকে ভাড়া নিয়ে ওই আবাসন প্রকল্পের নামে কয়েকটি সাইনবোর্ড স্থাপন করেন। এর পর থেকে স্থাপিত সাইনবোর্ডসহ আশ-পাশে এলাকায় প্লট বিক্রি করার উদ্দেশ্যে ক্রেতাদের সাইনবোর্ড প্লট বিক্রি শুরু করে। এ পর্যন্ত আবাসন প্রকল্পটি ঐ এলাকায় মাত্র ২৫ শতাংশ জমি ক্রয় করেছে বলে ঐ এলাকার জমির মালিকরা দাবি করেছেন। কৃষক আকবর আলীর ৫ বিঘা, রবিউল্লাহ মিয়ার সোয়া ১ বিঘা, আবু সাঈদ মিয়ার ৫ বিঘা, ইয়ানুছ আলীর ৪ বিঘা, মানাউল্লাহ মিয়ার ৫ বিঘা, এম এ ওয়াই নাজমুল হকের দের বিঘা, হরমুজ গংদের ৪ বিঘা, নুরা ও দিলু মিয়ার ৪ বিঘা, রুস্তম মিয়ার ৩ বিঘাসহ স্থানীয় কৃষকদের প্রায় শতাধীক বিঘা জমি রয়েছে। স্থানীয় প্রভাবশালীদের ব্যবহার করে বর্তমানে শতাধিক জমি জবরদখল চালিয়ে আসছে আবাসন প্রকল্পটির মালিকপক্ষ। ইদানীং বালু ভরাট করে জবরদখল করার জন্য জমির মালিকদের জমিতে জোরপূর্বক ড্রেজার বসিয়েছে। এছাড়া জমির উপর দিয়ে ড্রেজারের পাইপ স্থাপন করেছে। এখন শুধু বালু ভরাটের পালা। এখন এসব নিরীহ জমির মালিকদের চোখে ঘুম নেই। তারা সারাক্ষণ তাদের জমি পাহারা দিয়ে আসছেন। ড্রেজার ও ড্রেজারের পাইপ বসানোর সময় বার বার বাঁধা দেয়া সত্ত্বেও তারা মানেনি। প্রতিবাদ করলে দেয়া হয় নানা রকম মামলা-হামলার হুমকি। নিরীহ এসব জমির মালিক এখন দিশেহারা হয়ে পড়েছেন। নিরীহ এসব জমির মালিকরা জবরদখলকারী আবাসন প্রকল্পের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য প্রশাসনের কাছে জোর দাবি জানিয়েছে।


Fatal error: Uncaught exception 'PDOException' with message 'SQLSTATE[HY000]: General error: 26 file is encrypted or is not a database' in /home/janata/public_html/lib/newsHitCount.php:7 Stack trace: #0 /home/janata/public_html/lib/newsHitCount.php(7): PDO->query('Update newsHitC...') #1 /home/janata/public_html/lib/index.php(135): require('/home/janata/pu...') #2 /home/janata/public_html/web/details.php(10): lib->newsHitCount() #3 /home/janata/public_html/web/index.php(28): include('/home/janata/pu...') #4 /home/janata/public_html/index.php(15): include('/home/janata/pu...') #5 {main} thrown in /home/janata/public_html/lib/newsHitCount.php on line 7