নিবন্ধিত হোন |
ইউজার সাইনইন
ই-মেইলঃ
পাসওয়ার্ডঃ
পাসওয়ার্ড ভুলে গেছেন?
ই-মেইলঃ 
বন্ধ করুন (X)
ঢাকা, বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০১৯, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ৯ শাওয়াল ১৪৪০
নির্বাচনী অঙ্গীকার বাস্তবায়নে তৎপরতা শুরু
শহর ও গ্রামের ব্যবধান কমাতে কাজ করছে সরকার
সফিকুল ইসলাম
বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ টানা তৃতীয় মেয়াদে সরকার গঠনের পর উন্নয়নের ধারা গতিশীল করে গ্রামাঞ্চলের মানুষের ভাগ্য পরিবর্তনের উদ্যোগ নিয়েছে। শহর ও গ্রামের মধ্যে ব্যবধান কমাতে কাজ করছে। এরই অংশ হিসেবে শহরের সকল নাগরিক সুযোগ-সুবিধা গ্রামে পৌঁছে দিচ্ছে সরকারি দল আওয়ামী লীগ। শুধু তাই নয়, মানুষের দোরগোড়ায় সেবার বার্তা পৌঁছানোর লক্ষ্য নিয়ে কাজ করছে বর্তমান সরকার। ঐক্যবদ্ধভাবে দেশকে এগিয়ে নেবার মন্ত্রে দলের নেতাকর্মীরাও উজ্জীবিত হচ্ছে। একইসাথে দলের অসুস্থ নেতাকর্মীদের খোঁজ-খবর নিয়ে পাশে দাঁড়াচ্ছে আওয়ামী লীগ। দলের দায়িত্বশীল নেতাদের সাথে আলাপকালে এমন আভাস পাওয়া গেছে।

জানা গেছে, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে ঘোষিত ইশতেহারে উল্লেখ করেছিল আওয়ামী লীগ নির্বাচিত হয়ে সরকার গঠন করতে পারলে গ্রামকে শহরে উন্নীত করার কর্মসূচি গ্রহণ ও বাস্তবায়ন করা হবে। এরই ধারাবাহিকতায় দেশের প্রতিটি ঘরে বিদ্যুৎ পৌঁছে দেয়া ও পাকা সড়কের মাধ্যমে সকল গ্রামকে জেলা-উপজেলা শহরের সাথে সংযুক্ত করার জন্য কাজ করছে বর্তমান সরকার। একইসাথে শিক্ষা সম্প্রসারণ, কৃষি ও অকৃষি খাতে দক্ষ জনবল বাড়াতে কারিগরি ও বৃত্তিমূলক শিক্ষা-প্রশিক্ষণের সুযোগ বৃদ্ধি, স্বাস্থ্যসেবার সম্প্রসারণ, গ্রামাঞ্চলে আর্থিক সেবা খাতের পরিধি বিস্তার, কৃষি প্রযুক্তির সম্প্রসারণ, বিদ্যুতায়ন, গ্রামীণ অবকাঠামো ও যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়ন ইত্যাদি গ্রামোন্নয়ন প্রয়াসকে ত্বরান্বিত করছে আওয়ামী লীগ সরকার।

এদিকে আওয়ামী লীগ এবং তার সহযোগী সংগঠনের প্রবীণ ও অসুস্থ নেতাকর্মীদের তালিকা চেয়েছেন দলটির সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। ঐ তালিকা আওয়ামী লীগ সভাপতির ধানমন্ডিস্থ রাজনৈতিক কার্যালয়ে পাঠাতে বলা হয়েছে। সম্প্রতি এক বিবৃতিতে জেলা, মহানগর, উপজেলা, পৌর ও ইউনিয়ন কমিটিকে ঐ নেতাকর্মীদের তালিকা তৈরি করে পাঠানোর অনুরোধ জানান তিনি। একইসাথে প্রাকৃতিক দুর্যোগ ও বন্যায় আক্রান্ত উপকূলীয় এলাকায় সংগঠনের সকল স্তরের নেতাকর্মীদের দুর্গত মানুষের পাশে থেকে ত্রাণ তৎপরতা জোরদার করার অনুরোধ জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। বিবৃতিতে যেসব সাংগঠনিক জেলা, মহানগর, উপজেলা, থানা, পৌর শাখায় সদস্য সংগ্রহ ফরম সংগ্রহ করেনি, অতি দ্রুত সময়ের মধ্যে তাদের সদস্য ফরম সংগ্রহ করতে বলেছেন ওবায়দুল কাদের। আওয়ামী লীগের পাশাপাশি সহযোগী সংগঠনগুলোকেও অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়াতে বলা হয়েছে। রাজধানী ও আশপাশের জেলা শহরগুলোতে ক্ষুর্ধাত ছিন্নমূল-অসহায় মানুষের মুখে বিনামূল্যে খাবার ও নগদ অর্থ তুলে দিচ্ছে আওয়ামী যুবলীগ ও ছাত্রলীগ। এরই মধ্যে অসহায়দের পাশে দাঁড়িয়ে 'মানুষ মানুষের জন্য' আলোচনায় এসেছেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের সভাপতি ইসমাইল চৌধুরী সম্রাট। তিনি ফুটপাতে বসবাসরত ছিন্নমূল অসহায় মানুষদের বিনামূল্যে খাবার ও ওষুধ বিতরণ করে আসছেন দীর্ঘদিন যাবত। এছাড়াও রাজধানীর কাকরাইলের যুবজাগরণ কেন্দ্রের সামনে ছিন্নমূল-অসহায় নানা শ্রেণী পেশার সুবিধাবঞ্চিত মানুষের মাঝে রাতে খাবার বিতরণ করে নজিরবিহীন মানবতা সৃষ্টি করেছেন।

সম্প্রতি কৃষকের ধান কেটে দিয়ে আলোচনায় এসেছে ছাত্রলীগ। সংগঠনটি দেশজুড়ে বিভিন্ন জেলা-উপজেলায় কৃষকের ধান কাটা ও মাড়াইয়ে অংশ নেন ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এছাড়াও নেত্রকোনার কেন্দুয়া উপজেলার শারীরিক প্রতিবন্ধী খামারি আবুল কাশেমকে ২০০ হাঁস কেনার টাকা দিয়েছেন জেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সোবায়েল আহমদ খান। সংগঠনটির কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানীর ঘোষণার পর ক্ষতিগ্রস্ত খামারির হাতে এ টাকা তুলে দেয়া হয়। এভাবে একে একে ভালো কাজের মধ্য দিয়ে সুনাম কুড়াতে কাজ করছে ঐতিহ্যবাহী সংগঠনটির নেতাকর্মীরা।

এ বিষয়ে কথা হয় নৌ পরিবহণ প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরীর সাথে। তিনি বলেন, অনন্তকাল চেষ্টা করেও একজন বঙ্গবন্ধু পাওয়া যাবে না। বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে বুকে ধারণ করে তারই যোগ্য উত্তরসূরি বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশকে উন্নয়নের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। মানুষের দোরগোড়ায় সেবার বার্তা নিয়ে পৌঁছানোই হচ্ছে আওয়ামী লীগের লক্ষ্য। আমরা ঐক্যবদ্ধভাবে দেশকে এগিয়ে নেবার মন্ত্রে উজ্জীবিত হয়েছি। এ বিষয়ে আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির উপ-প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম বলেন, মানুষ চায় জীবনযাত্রার মানোন্নয়ন। ২০০৮ সালে আমরা যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলাম, ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়বো, আমরা ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত করবো, আমরা তার আগেই সেটা করতে পেরেছি। তিনি বলেন, গ্রামের অর্থনৈতিক কাঠামোসহ সার্বিক অর্থনীতিকে শক্তিশালী করার জন্য যে অভূতপূর্ব পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে। এ বিষয়গুলো আমরা যদি মানুষের কাছে ঠিকমতো পৌঁছাতে পারি তাহলে বর্তমান সরকারের নির্বাচনী অঙ্গীকার বাস্তবায়ন হবে। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রতি জনআস্থা বাড়বে। বারবার জনগনের ভোটে রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় আসবে আওয়ামী লীগ।

এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আনার মতামত দিন।
মতামত দিতে চাইলে অনুগ্রহ করে করুন।
আপনার কোন একাউন্ট না থাকলে রেজিষ্ট্রেশন করুন।
এই পাতার আরো খবর -
সর্বাধিক পঠিত
ফটো গ্যালারি
আজকের পত্রিকা
আজকের নামাজের সময়সূচীসেপ্টেম্বর - ২৩
ফজর৪:৩৩
যোহর১১:৫২
আসর৪:১৩
মাগরিব৫:৫৭
এশা৭:১০
সূর্যোদয় - ৫:৪৭সূর্যাস্ত - ০৫:৫২
পুরোন সংখ্যা
বছর : মাস :
আজকের পাঠকসংখ্যা
৪৮৮৪.০
সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতিঃ সৈয়দ এম. আলতাফ হোসাইন। সম্পাদক : আহ্সান উল্লাহ্। উপদেষ্টা সম্পাদক : মোঃ শাহাবুদ্দিন শিকদার। প্রকাশক ছৈয়দ আন্ওয়ার কর্তৃক রোমাক্স লিমিটেড, তেজগাঁও শিল্প এলাকা থেকে মুদ্রিত। সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : খলিল ম্যানশন (৩য়, ৫ম ও ৬ষ্ঠ তলা), ১৪৯/এ, ডিআইটি এক্সটেনশন এভিনিউ, ঢাকা-১০০০ থেকে প্রকাশিত। ফোন : ৯৩৫৭৭৩০ (বার্তা), ৮৩১৫৬৪৯ (বাণিজ্যিক), ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪.
ই-মেইলঃ djanata123@gmail.com, bishu.janata@gmail.com
ফোনঃ ০২৮৩১৫১১৫, ০২৮৩১৫৬৪৯ ফ্যাক্সঃ ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪
Copyright The Dainik Janata © 2010 Developed By : orangebd.com.