নিবন্ধিত হোন |
ইউজার সাইনইন
ই-মেইলঃ
পাসওয়ার্ডঃ
পাসওয়ার্ড ভুলে গেছেন?
ই-মেইলঃ 
বন্ধ করুন (X)
ঢাকা, বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ৯ ফাল্গুন ১৪২৪, ৪ জমাদিউস সানি ১৪৩৯
সাপাহারে ভন্ড কবিরাজের কান্ড একটি পরিবার সর্বস্বান্ত
সাপাহার (নওগাঁ) প্রতিনিধি
নওগাঁর সাপাহারে রিনা আক্তার (১১)নামের ৫ম শ্রেণী পড়ুয়া এক শিশু শিক্ষার্থীকে জিম্মি করে অসহায় এক চা-দোকানদারের নিকট থেকে লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়ে সর্বশান্ত করেছে দুলাল নামের এক ভন্ড কবিরাজ। সম্প্রতি উপজেলার নিশ্চিন্তপুর মোড়ে হঠাৎপাড়ার দুখুমিয়ার পুত্র ভন্ড কবিরাজ দুলাল মৌলভী চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটিয়েছে। জানা গেছে, উপজেলার নিশ্চিন্তপুর মোড়ের অদূরে হঠাৎপাড়ার দুখু মিয়ার কওমী মাদ্রাসা পড়ুয়া ছেলে দুলাল লেখা পড়ার পাশাপাশি নিজকে জি্বনের কবিরাজ দাবী করে বিভিন্ন স্থানে ঝাঁড় ফু সহ কবিরাজি করে আসছিল। এমনই অবস্থায় ওই মোড়ে ইউনুস আলী নামের এক চায়ের দোকানদারের পরিবারের সাথে দুখু মিয়ার পরিবারের এক ঘনিষ্ঠতা সৃষ্টি হয়। ঘনিষ্ঠতার জেরে আজ থেকে প্রায় ১৭দিন পূর্বে আগের দিনের মত এক রাতে চাওয়ালার অবুঝ শিশু কন্যা রিনা ও তার এক ছোট ভাই দুখু মিয়ার বাড়িতে রাত্রি-যাপন করে। দুষ্ট কবিরাজ দুলাল ঘনিষ্ঠতার সুযোগ নিয়ে ওই রাতে ঘুমন্ত অবস্থায় রিনার ভাইকে বিছানায় রেখে রিনা আক্তারকে অন্যত্র সরিয়ে ফেলে সকালে রিনার মাকে ডেকে বলে যে আজ রাতে রিনাকে জি্বনে তুলে নিয়ে গেছে তাকে ফেরত পেতে হলে এ কথা কাউকে বলা যাবেনা বললে দু'দিনের মধ্যেই তোমার স্বামী মারা যাবে। ভন্ড কবিরাজের কথা শুনে ভয়ে রিনার মা তার স্বামীকে বুঝিয়ে ঘটনাটি বলেন, সে সাথে অন্যকাউকে ঘটনাটি না বলার জন্যও অনুরোধ করেন। সহজ সরল চা দোকানদার ও তার স্ত্রী এটি জি্বনের ঘটনা ভেবে কাওকে কিছু না বলে কবিরাজ দুলালের সাথে সারাক্ষণ যোগাযোগ রক্ষা করে চলে। এরই মধ্যে ভন্ড ও চালাক কবিরাজ দুলাল তার মেয়েকে ফেরাতে হলে অনেক টাকার দরকার তা না হলে জি্বনেরা তাকে কিছুতেই ফেরত দিবেনা বলে চা-দোকানদার ও তার স্ত্রী মেয়েকে ফেরত পেতে বিভিন্ন এনজিও হতে লোন কয়েক দফায় মোট ৯৬ হাজার টাকা কবিরাজ দুললের হাতে দেয়। এরপরেও মেয়েকে ফেরত না দেয়ায় সম্প্রতি চা-দোকানদার ইউনুস আলী তার স্ত্রীর সাথে বাক বিতন্ডতায় লিপ্ত হলে ঘটনাটি জানা জানি হয়। এর পর স্থানীয় লোকজন কবিরাজ দুলালকে এ বিষয়ে আইন প্রয়োগকারী সংস্থার ভয়ভীতি দেখালে গত ১৬ ফেব্রুয়ারি শুক্রবার দিবাগত রাত সাড়ে ৩টার দিকে দুলাল তার নিজ বাড়ী হতে ১৭ দিন জিম্মিকরে রাখা শিশু কন্যা রিনা আক্তারকে তার মা-বাবার নিকট প্রদান করেন। এ বিষয়ে কবিরাজ দুলালের সাথে কথা বলতে মঙ্গলবার সকালে তার বাসায় গেলে সে পলাতক থকায় তার পিতাকে না পেয়ে তার মা'র সাথে কথা হলে তিনি ঘটনার কথা অস্বীকার করেন কিন্তু জিম্মিকরে রাখা রিনাকে গত শুক্রবার ফেরত দেয়া ও রিনার পিতা-মাতার নিকট থেকে তার ছেলের ৪০ হাজার টাকা নেয়ার কথা স্বীকার করেন। অপর দিকে চা-দোকানদার রিনার পিতা-মাতার সাথে কথা বলতে গেলে মঙ্গলবার সকাল হতে তাদের চায়ের দোকানটি বন্ধ থাকায় তাদের সাথে কথা বলা যায়নি। এবিষয়ে স্থানীয় থানায় যোগাযোগ করা হলে থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি শামসুুল আলাম চৌধুরী জানান যে এখনও এসংক্রান্ত বিষয়ে থানায় কোন অভিযোগ আসেনি অভিযোগ পেলে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে তিনি জানান তবে স্থানীয়ভাবে আগামী বৃহস্পতিবারে বিষয়টি মিমাংসার জন্য ওই মোড়ে দরবার বসার কথা রয়েছে বলে স্থানীয় ইউপি সদস্য মোজাম্মেল হক মোজাম জানিয়েছেন। চা-দোকানদার ইউনুস আলীর বাড়ি উপজেলার খঞ্জনপুর গ্রামে, দীর্গ দিন থেকে সে নিশ্চিন্তপুর মোড়ে একটি দোকান ঘর ভাড়া নিয়ে পিছনে আবাসীক ও সামনে চয়ের দোকান করে স্ত্রী-পরিবারসহ সেখানে বসবাস করে আসছিল বলে জানা গেছে। এছাড়া ওই ভন্ড কবিরাজ দুলাল ইতোপূর্বে ঐ গ্রামের অনেকের সাথে ভন্ডামী করে অনেক টাকা আত্মসাৎ করেছে, এমনকি এক গৃহবধূকে টাকা দ্বিগুন হওয়ার লোভ দেখিয়ে প্রথমে ১০ হাজার টাকা ২০ হাজার টাকায় রুপান্তর করে পরবর্তীতে ওই গৃহবধূর ৫০ হাজার টাকা প্রতারণা করে আত্মসাত করেছে বলেও ওই এলাকার অনেকেই জানিয়েছেন।
এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আনার মতামত দিন।
মতামত দিতে চাইলে অনুগ্রহ করে করুন।
আপনার কোন একাউন্ট না থাকলে রেজিষ্ট্রেশন করুন।
এই পাতার আরো খবর -
সর্বাধিক পঠিত
ফটো গ্যালারি
আজকের পত্রিকা
আজকের নামাজের সময়সূচীঅক্টোবর - ১৮
ফজর৪:৪১
যোহর১১:৪৪
আসর৩:৫২
মাগরিব৫:৩৪
এশা৬:৪৫
সূর্যোদয় - ৫:৫৭সূর্যাস্ত - ০৫:২৯
পুরোন সংখ্যা
বছর : মাস :
আজকের পাঠকসংখ্যা
৮৪৬০.০
সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতিঃ সৈয়দ এম. আলতাফ হোসাইন। সম্পাদক : আহ্সান উল্লাহ্। উপদেষ্টা সম্পাদক : মোঃ শাহাবুদ্দিন শিকদার। প্রকাশক ছৈয়দ আন্ওয়ার কর্তৃক রোমাক্স লিমিটেড, তেজগাঁও শিল্প এলাকা থেকে মুদ্রিত। সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : খলিল ম্যানশন (৩য়, ৫ম ও ৬ষ্ঠ তলা), ১৪৯/এ, ডিআইটি এক্সটেনশন এভিনিউ, ঢাকা-১০০০ থেকে প্রকাশিত। ফোন : ৯৩৫৭৭৩০ (বার্তা), ৮৩১৫৬৪৯ (বাণিজ্যিক), ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪.
ই-মেইলঃ djanata123@gmail.com, bishu.janata@gmail.com
ফোনঃ ০২৮৩১৫১১৫, ০২৮৩১৫৬৪৯ ফ্যাক্সঃ ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪
Copyright The Dainik Janata © 2010 Developed By : orangebd.com.