নিবন্ধিত হোন |
ইউজার সাইনইন
ই-মেইলঃ
পাসওয়ার্ডঃ
পাসওয়ার্ড ভুলে গেছেন?
ই-মেইলঃ 
বন্ধ করুন (X)
ঢাকা, বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ৯ ফাল্গুন ১৪২৪, ৪ জমাদিউস সানি ১৪৩৯
চলতি মাসেই দরপত্র প্রক্রিয়া
ভারতীয় ঋণে ১১শ বাস-ট্রাক কিনতে যাচ্ছে বিআরটিসি
এফএনএস
রাষ্ট্রায়ত্ত পরিবহন সংস্থা বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন করপোরেশন (বিআরটিসি) গণপরিবহন সংখ্যা বাড়াতে ২০১৬ সালে ১১শ' বাস-ট্রাক কেনার উদ্যোগ গ্রহণ করে। ভারতের লাইন অব ক্রেডিটের (এলওসি) আওতায় ৬শ বাস ও ৫শ ট্রাক কেনা হবে। সেই লক্ষ্যে চলতি মাসেই বিআরটিসি দরপত্র প্রক্রিয়া শুরু করতে যাচ্ছে। নতুন বাস ও ট্রাক যুক্ত হলে বিআরটিসির বহরে সচল পরিবহনের সংখ্যা ২ হাজার ১৯৪টিতে উন্নীত হবে। তার মধ্যে ১ হাজার ৫৮১টি বাস ও ট্রাকের সংখ্যা হবে ৬১৩। বিআরটিসি সংশ্লিষ্ট সূত্রে এসব তথ্য জানা যায়।

সংশ্লিষ্ট সূত্র মতে, বিগত ২০১৬ সালের আগস্টে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি (একনেক) বিআরটিসির জন্য বাস ও ট্রাক সংগ্রহের লক্ষ্যে পৃথক দুটি প্রকল্প অনুমোদন করে। ভারতের অর্থায়নে প্রকল্প দুটির মেয়াদ ধরা হয়েছে চলতি বছরের জুন পর্যন্ত। তাতে ব্যয় হবে ৭৯৮ কোটি টাকা। দুই প্রকল্পে ৫৯৩ কোটি টাকা ঋণ দেবে ভারত। বাকি অর্থের জোগান দেবে বাংলাদেশ সরকার। তার মধ্যে ৬০০ বাস কিনতে ব্যয় হবে ৫৮১ কোটি টাকা। আর ২১৭ কোটি টাকায় কেনা হবে ৫০০ ট্রাক।

সূত্র জানায়, বাস-ট্রাক কেনার বিআরটিসি প্রকল্প দুটিতে ঋণ দিচ্ছে ভারতের এঙ্মি ব্যাংক। সেজন্য দরপত্র প্রক্রিয়া শুরু করতে ব্যাংকটির সম্মতি প্রয়োজন। কয়েকদিনের মধ্যেই ব্যাংকটির সম্মতিপত্র বিআরটিসির কাছে পৌঁছাবে বলে সংশ্লিষ্টরা আশাবাদী। কারণ আর জুনের মধ্যেই প্রকল্পের কাজ শেষ করার লক্ষ্য রয়েছে। আর ভারতীয় ব্যাংকের সম্মতি পাওয়ার সাথে সাথেই বিআরটিসি দরপত্র প্রক্রিয়া শুরু করবে। চলতি মাসের মধ্যেই দরপত্র প্রক্রিয়া শুরু করা সম্ভব হবে আশা করা হচ্ছে। ইতিমধ্যে সর্বশেষ সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগে অনুষ্ঠিত ২০১৭-১৮ অর্থবছরের বৈদেশিক সাহায্যপুষ্ট প্রকল্পগুলোর অগ্রগতি পর্যালোচনা সভায় দ্রুত প্রকল্প দুটির দরপত্র প্রক্রিয়া সম্পন্ন ও যানবাহনের গুণগত মান নিশ্চিত করতে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণের সিদ্ধান্ত হয়েছে।

সূত্র আরো জানায়, নতুন কিনতে যাওয়া ৬০০ বাসের মধ্যে ৩০০টি ডাবল ডেকার, ১০০টি সিঙ্গেল ডেকার এসি, ১০০টি সিঙ্গেল ডেকার নন-এসি ও ১০০টি এসি সিটি বাস কেনা হবে। প্রকল্প প্রস্তাবনার প্রাক্কলন অনুযায়ী প্রতিটি ডাবল ডেকার বাসের দাম ধরা হয়েছে ৭৯ লাখ টাকা। সিঙ্গেল ডেকারের এসি ৭৬ লাখ, আর নন-এসিগুলোর প্রতিটির দাম ৪৬ লাখ টাকা। সিঙ্গেল ডেকারের ওসব বাস দূরপাল্লার বিভিন্ন রুটে চালানোর পরিকল্পনা করা হচ্ছে। তাছাড়া প্রতিটি এসি সিটি বাসের দাম ধরা হয়েছে ৭৫ লাখ টাকা। সবগুলো বাসের আয়ুষ্কাল ধরা হয়েছে ১২ বছর। একইভাবে প্রতিটি ট্রাকের দাম প্রাক্কলন করা হয়েছে প্রায় ৪৩ লাখ টাকা।

এ প্রসঙ্গে বিআরটিসির চেয়ারম্যান ফরিদ আহমেদ ভূঁইয়া জানান, বিআরটিসির বহরে বাসের সংখ্যা প্রয়োজনের তুলনায় অনেক কম। ওই কারণে ইচ্ছে থাকা সত্ত্বেও অনেক রুটেই বিআরটিসি বাস চালাতে পারছে না। নতুন বাস বহরে যুক্ত হলে সচল বাসের সংখ্যা দেড় হাজার ছাড়িয়ে যাবে। তার ফলে বন্ধ হয়ে যাওয়া অনেক রুটে পুনরায় বাস চালু করা যাবে। তাছাড়া বিআরটিসির বহরে ট্রাকের সংখ্যাও কম। নতুন ট্রাকগুলো যুক্ত হলে পণ্য পরিবহন বৃদ্ধি পাবে। নিরাপদ ও স্বস্তিদায়ক সেবার পাশাপাশি বিআরটিসিকে একটি লাভজনক প্রতিষ্ঠানে পরিণত করার লক্ষ্যে কার্যক্রম চালানো হচ্ছে।

এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আনার মতামত দিন।
মতামত দিতে চাইলে অনুগ্রহ করে করুন।
আপনার কোন একাউন্ট না থাকলে রেজিষ্ট্রেশন করুন।
এই পাতার আরো খবর -
সর্বাধিক পঠিত
ফটো গ্যালারি
আজকের পত্রিকা
আজকের নামাজের সময়সূচীনভেম্বর - ১৩
ফজর৫:১১
যোহর১১:৫৩
আসর৩:৩৮
মাগরিব৫:১৭
এশা৬:৩৪
সূর্যোদয় - ৬:৩২সূর্যাস্ত - ০৫:১২
পুরোন সংখ্যা
বছর : মাস :
আজকের পাঠকসংখ্যা
৬৫৫০.০
সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতিঃ সৈয়দ এম. আলতাফ হোসাইন। সম্পাদক : আহ্সান উল্লাহ্। উপদেষ্টা সম্পাদক : মোঃ শাহাবুদ্দিন শিকদার। প্রকাশক ছৈয়দ আন্ওয়ার কর্তৃক রোমাক্স লিমিটেড, তেজগাঁও শিল্প এলাকা থেকে মুদ্রিত। সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : খলিল ম্যানশন (৩য়, ৫ম ও ৬ষ্ঠ তলা), ১৪৯/এ, ডিআইটি এক্সটেনশন এভিনিউ, ঢাকা-১০০০ থেকে প্রকাশিত। ফোন : ৯৩৫৭৭৩০ (বার্তা), ৮৩১৫৬৪৯ (বাণিজ্যিক), ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪.
ই-মেইলঃ djanata@dhaka.net
ফোনঃ ০২৮৩১৫১১৫, ০২৮৩১৫৬৪৯ ফ্যাক্সঃ ৮৮-০২-৮৩১৪১৭৪
Copyright The Dainik Janata © 2010 Developed By : orangebd.com.